৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং , ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ১৯শে রবিউস-সানি, ১৪৪২ হিজরী

আইন করে নয়, হিজাবের গুরুত্ব মানুষকে বুঝাতে হবে

আইন করে নয়, হিজাবের গুরুত্ব মানুষকে বুঝাতে হবে

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : সাধারণ মানুষকে আগে দ্বীনের উপর উঠানোর জন্য ফিকির করে যেতে হবে জানিয়ে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামার চেয়ারম্যান, ঐতিহাসিক শোলাকিয়া ঈদগাহের গ্র্যান্ড ইমাম, মাওলানা সাইয়্যিদ আসআদ মাদানী রহ.-এর খলীফা শাইখুল হাদীস আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ। তিনি বলেন, সরকারের একজন নামাজি কর্মকর্তা চেয়েছিলেন মানুষের শুদ্ধি। পুরুষকে টাখনুর উপরে কাপড় পরা এবং মেয়েদের হিজাব বিষয়ে পরামর্শ দিয়েছিলেন।

সমাজ শুদ্ধ না থাকায় তিনি তিরস্কৃত হয়েছেন। তার কথা কেউ মানতে পারেনি। সমাজের লোকজন তা হজম করতে পারেনি। বরং উল্টো সমালোচনায় মুখর হয়েছেন। এমনকি ইসলামের শাশ্বত এই সৌন্দর্যের বিরোধিতা করে গোনাহগার হয়েছেন। অথচ আমরা হরদম ইসলামের এই বিধান লঙ্ঘন করে কবিরা গোনা করে চলেছি। আল্লাহ আমাদের হেফাজত করুন।

শুক্রবার (১৩ নভেম্বর ২০২০) রাজধানীর খিলগাঁও ইকরা বাংলাদেশ জামে মসজিদ কমপ্লেক্সে জুমার বয়ানে মাওলানা সাইয়্যিদ আসআদ মাদানী রহ.-এর এই খলীফা শাইখুল হাদীস আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ এসব কথা বলেন।

বিষ খেতে খেতে অভ্যস্ত এ মানুষ ভালো কিছু গ্রহণে আগ্রহী নয় জানিয়ে আল্লামা মাসঊদ বলেন, আমরা সমাজে ইসলাহের কাজ করছি। মানুষ পরিশুদ্ধ হলেই সমাজ পরিশুদ্ধ হবে। ইসলামের বিধান মানায় আগ্রহী হবে। এ কারণেই নবীজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম সবার আগে মানুষকে গঠন করেছেন। ইসলাম মানার উপযোগী করেছেন।

দানের প্রতি নবীজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম সবসময় তৎপর ছিলেন উল্লেখ করে আল্লামা মাসঊদ বলেন, কেউ যদি বলেন, নবীজীর তো সম্পদ ছিলো না, তা ভুল হবে। নবীজীর প্রচুর পরিমাণ সম্পদ ছিলো। তবে জাকাত দিতে হয়নি। কারণ, অকাতরে নবীজী দান করতেন। জাকাত দেয়ার নিয়মে পড়তোই না নবীজীর সম্পদ।

জাকাত দিয়ে দানশীল হওয়া যায় না উল্লেখ করে ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ বলেন, জাকাত আদায় করা প্রত্যেক নিসাব পরিমাণ সম্পত্তির মালিকের উপর একান্ত কর্তব্য। নির্ধারিত সময়ে পরে এ জাকাত আদায় করার মাধ্যমে নিজের অন্য সম্পদের পবিত্রতা অর্জন হয়। কিন্তু কেউ মাদরাসায় জাকাত দিয়ে, গরিবের হক পৌঁছে দিয়ে দানশীল হওয়ার লকব লাগানোর কোনো যুক্তিকতা নেই।

গ্রন্থনা ও সম্পাদনা : মাসউদুল কাদির

নিউজটি শেয়ার করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ
Design & Developed BY ThemesBazar.Com