২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং , ১০ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ৭ই সফর, ১৪৪২ হিজরী

আক্রান্তে বিশ্ব রেকর্ড ভারতের

আক্রান্তে বিশ্ব রেকর্ড ভারতের

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : করোনাভাইরাসে দৈনিক আক্রান্তের সবগুলো রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে ভারত। শুক্রবার দেশটি জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়ছেন ৯৬ হাজার ৫৫১ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ২০৯ জনের। এখন পর্যন্ত ভারতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪৫ লাখ ৬২ হাজার ৪১৪ জন ও মোট মৃতের সংখ্যা ৭৬ হাজার ২৭১ জন।

ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুসারে, শুক্রবার সকাল ৮টা পর্যন্ত ভারতে করোনা সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩৫ লাখ ৪২ হাজার ৬৬৩ জন। ভারতে এখন সুস্থতার হার ৭৭.৬৫ শতাংশ। আর মৃত্যুহার ১.৬৭ শতাংশ। ভারতে এখন অ্যাকটিভ কেস ৯ লাখ ৪৩ হাজার ৪৮০।

ভারতের কোভিড পরিসংখ্যানের শীর্ষে থাকা মহারাষ্ট্রে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ১০ লাখ। এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৯ লাখ ৬৭ হাজার ৩৪৯ জন। সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ২৭ হাজার ৭৮৭ জনের। সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছে ৬ লাখ ৮৬ হাজার ৪৬২ জন। মহারাষ্ট্রে এখন অ্যাকটিভ কেস ২ লাখ ৫৩ হাজার ১০০।

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ। সেখানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫,২৭,৫১২। সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৪৬৩৪ জনের। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৪,২৫,৬০৭ জন। অন্ধ্রপ্রদেশে অ্যাকটিভ কেস ৯৭,২৭১।

তৃতীয় স্থানে রয়েছে তামিলনাড়ু। এখানে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪,৮০,৫২৪ জন। কোভিড-১৯ সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৮০৯০ জনের। সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৪,২৩,২৩১। তামিলনাড়ুতে অ্যাকটিভ কেস ৪৯,২০৩।

চতুর্থ স্থানে রয়েছে কর্নাটক। এখানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৪,২১,৭৩০। মৃত্যু হয়েছে ৬৮০৮ জনের। সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছে ৩,১৫,৪৩৩ জন। কর্নাটকে অ্যাকটিভ কেস ৯৯,৪৮৯।

পঞ্চম স্থানে রয়েছে উত্তরপ্রদেশ। এখানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২,৮৫,০৪১। সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৪১১২ জনের। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২,১৬,৯০১ জন। উত্তরপ্রদেশে অ্যাকটিভ কেস ৬৪,০২৮।

ষষ্ঠ স্থানে থাকা দিল্লিতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২,০১,১৭৪। সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ৪৬৩৮ জনের। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১,৭২,৭৬৩ জন। দিল্লিতে অ্যাকটিভ কেস ২৩,৭৭৩।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ
Design & Developed BY ThemesBazar.Com