৩১শে অক্টোবর, ২০২০ ইং , ১৫ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ , ১৩ই রবিউল-আউয়াল, ১৪৪২ হিজরী

ইসরায়েল-ফিলিস্তিনের সংঘাতে একমাত্র পথ দ্বি-রাষ্ট্রীয় সমাধান

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : আরব বিশ্ব এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নের চারটি দেশ বলেছে, দীর্ঘদিনের ইসরায়েল-ফিলিস্তিনের সংঘাত অবসানের একমাত্র পথ দ্বি-রাষ্ট্রীয় সমাধান। এই সংঘাতের সমাধানে উভয় পক্ষকে আলোচনার টেবিলে বসার আহ্বান জানিয়েছে ওই চার দেশ।

বৃহস্পতিবার ফ্রান্স, মিসর ও জর্ডানের পররাষ্ট্র মন্ত্রীরা আম্মানে এক বৈঠকে মিলিত হন। পরে জার্মানির পররাষ্ট্র মন্ত্রীও অনলাইনে এই বৈঠকে যোগ দেন। বৈঠক থেকে ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘাতের অবসানে দ্বিরাষ্ট্রীয় সমাধানই একমাত্র পথ বলে মন্তব্য করেন তারা।

বৈঠকের পর জর্ডানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আয়মান আল-সাফাদি সাংবাদিকদের বলেন, দ্বি-রাষ্ট্রীয় সমাধানের ভিত্তিতে এই সংঘাতের অবসান ছাড়া কোনও ধরনের ব্যাপক ও স্থায়ী শান্তি আসবে না।

ফ্রান্সের পররাষ্ট্র মন্ত্রী জিন-ইভেস লে দ্রিয়ান জর্ডানের মন্ত্রীর সঙ্গে ঐক্যমত পোষণ করে বলেন, এ ছাড়া ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘাতের অন্য কোনও সমাধান নেই। সংলাপের জন্য ফিলিস্তিনি এবং ইসরায়েলিদের অঙ্গীকার প্রমাণ করা দরকার। আমরা এই প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার জন্য সমর্থন জানাতে প্রস্তুত রয়েছি।

সম্প্রতি ইসরায়েলের সঙ্গে সংযুক্ত আরব আমিরাত এবং বাহরাইনের কূটনৈতিক সম্পর্ক স্বাভাবিক করতে স্বাক্ষরিত চুক্তির প্রশংসা করেছেন ওই চার দেশের মন্ত্রীরা। ওই অঞ্চলে শান্তি সম্ভব সেটি এই চুক্তির মাধ্যমে পরিষ্কার হয়েছে বলেও মন্তব্য করেন তারা।

মিসরের পররাষ্ট্র মন্ত্রী সামেহ শোকরি বলেন, বৃহৎ শান্তিতে পৌঁছানোর লক্ষ্যে আরও সমর্থন এবং আলোচনার জন্য এই চুক্তি গুরুত্বপূর্ণ এক অগ্রগতি।

আরব বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে ১৯৭৯ সালে ইসরায়েলের সঙ্গে শান্তি চুক্তি স্বাক্ষর করে মিসর। পরে ১৯৯৪ সালে একই পথ অনুসরণ করে ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন করে জর্ডান। গত সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় হোয়াইট হাউসে ইসরায়েলের সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করে সংযুক্ত আরব আমিরাত এবং বাহরাইন।

তবে ফিলিস্তিন শুরু থেকেই ইসরায়েলের সঙ্গে আরব বিশ্বের দেশগুলোর কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের উদ্যোগের কড়া নিন্দা জানিয়ে আসছে। ইসরায়েলের সঙ্গে এসব চুক্তির মাধ্যমে ফিলিস্তিনিদের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করা হচ্ছে বলে সমালোচনা করছেন ফিলিস্তিনিরা।

সূত্র: আলজাজিরা, এএফপি

নিউজটি শেয়ার করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ
Design & Developed BY ThemesBazar.Com