১৮ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ৪ঠা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ৭ই জিলকদ, ১৪৪২ হিজরি

জেলের জালে দৈত্যাকার বাঘাইড়

বগুড়া প্রতিনিধি ●  জেলে হাসিনুর হাওয়ালদার তার চার সহযোগীকে সঙ্গে নিয়ে মাছ ধরতে নামেন যমুনায়। নৌকায় ফাঁসি জাল ওঠাচ্ছেন আর যমুনা নদীর বিরাট অংশ ঘিরে দিচ্ছেন। সকাল পেরিয়ে দুপুর গড়িয়ে যাচ্ছে। বড় মাছের আশায় তখনও আশাবাদী জেলেরা। এক পর্যায়ে জাল টানতে গিয়ে শক্তির মাত্রা বেড়ে যায়। এতে ভীষণ আশাবাদী হয়ে ওঠে তারা। নৌকার কাছে ভিড়তে জালে ওঠে আসে বড় আকারের একটি বাঘাইড় মাছ। মুহূর্তে জেলেদের চোখে-মুখে ফুটছে হাসির ঝিলিক। তখন দুপুর গড়িয়ে বিকেল। ঘটনাটি ঘটে বগুড়ার ধুনট উপজেলার ভেতর দিয়ে বহমান যমুনা নদীর শহড়াবাড়ী ঘাট এলাকায়।

বুধবার বিকেলে ধুনট পৌর বাজারের একটি আড়াতে ২০ কেজি ওজনের এই বাঘাইড় মাছটি বিক্রি করতে আনেন ওই জেলেরা। মাছাটি ৬৫০ টাকা কেজি দরে ১৩ হাজার টাকায় কিনে নেন একজন ক্রেতা। ২০ কেজি ওজনের মাছটির ক্রেতা ছিলেন-উপজেলা সদরের মালোপাড়া গ্রামের মৎস্য ব্যবসায়ী সুশীল কুমার হাওয়ালাদার। তবে তরতাজা মাছটি বিক্রি হওয়ার আগ পর্যন্ত অনেকেই দামদর করেন। আবার অনেকেই মাছটি এক নজর দেখতে আড়াতে ভিড় জমান বলেও জানা যায়। জেলে হাসিনুর হাওয়ালদার বলেন, প্রায় ৩০ বছর ধরে যমুনা নদীতে মাছ ধরার কাজ করছেন তিনি।

এখান থেকে যা আয় হয় তা দিয়েই পরিবার-পরিজন নিয়ে জীবিকা নির্বাহ করেন। তিনি বলেন, প্রত্যেক বছরই এ সময়ে বড় আকারের বাঘাইড় মাছ জালেদের জালে ধরা পড়ে। এবারও মৌসুমের শুরুতে বড় আকারের মাছ ধরা পড়ায় খুব খুশি। ধুনট পৌরসভার বাজার পরিদর্শক জহুরুল ইসলাম মল্লিক বলেন, এর আগে এ বাজারে এতো বড় বাঘাইড় মাছ ওঠেনি। খবর পেয়ে মাছটি একনজর দেখার জন্য অনেকেই বাজারে ভিড় জমান। অনেকে কেনার জন্য দরদামও করেন।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২১ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com