বৃহস্পতিবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৯, ০৮:০৬ অপরাহ্ন

সীমান্তে কেন ধরলেন রোহিঙ্গা তরুণী

সীমান্তে কেন ধরলেন রোহিঙ্গা তরুণী

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : একজন রোহিঙ্গা তরুণী সাহানা আক্তার (২৩)। তিনি ধরা পড়ে আলোড়ন তুলেছেন দেশে। পাসপোর্টে মাদারীপুরের শিবচরের ঠিকানা ব্যবহার করে বাংলাদেশ থেকে ভারত গিয়ে আবার বাংলাদেশে প্রবেশকালে দর্শনা জয়নগর চেকপোস্টে সাহানা আক্তার (২৩) নামে এক রোহিঙ্গা তরুণী ধরা পড়েছেন।

বুধবার রাত ৮টার দিকে তাকে শিবচর থানায় হস্তান্তর করেছে চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা মডেল থানা পুলিশ। আটক রোহিঙ্গা তরুণীর কাছে বাংলাদেশ সরকারের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে দেয়া পরিচয়পত্র পাওয়া গেছে।

শিবচর থানা পুলিশ জানায়, গত ১ আগস্ট রোহিঙ্গা তরুণী সাহানা আক্তার দর্শনার জয়নগর ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে গেদে বর্ডার ইমিগ্রেশনের মাধ্যমে ভারতে যান। মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টার দিতে তিনি ভারতের গেদে বর্ডার ইমিগ্রেশন দিয়ে দর্শনা জয়নগর ইমিগ্রেশন চেকপোস্টের মাধ্যমে বাংলাদেশে প্রবেশের সময় তার কথাবার্তায় মিয়ানমারের আঞ্চলিক ভাষার টান পায় ইমিগ্রেশন পুলিশ। এ সময় তাকে তাকে আটক করা হয়।

রোহিঙ্গা তরুণী সাহানা আক্তারের পাসপোর্টে তার পরিচয় মাদারীপুরের শিবচর উপজেলার উমেদপুর ইউনিয়নের রামরায়েরকান্দি গ্রাম উল্লেখ করা হয়েছে। পাসপোর্টে তার বাবার নাম বাবুল দরানী ও মায়ের নাম নিলুফা বেগম ও জন্ম তারিখ ১৪ জুন ১৯৮৯ উল্লেখ রয়েছে। পাসপোর্টটি ২০১৬ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি ঢাকা থেকে ইস্যু করা হয় যার মেয়াদোত্তীর্ণ হবে ২০২১ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি। আবার তার কাছে পাওয়া বাংলাদেশ সরকারের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে বরাদ্দকৃত পরিচয়পত্রে তার নাম আজিদা, বাবার নাম আব্দুল খালেক, মায়ের নাম লালু ও জন্ম তারিখ ১ জানুয়ারি ১৯৯৯ উল্লেখ রয়েছে।

শিবচর থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) আমির হোসেন বলেন, রোহিঙ্গা তরুণীর পাসপোর্টে শিবচরের ঠিকানা থাকায় দামুড়হুদা মডেল থানা পুলিশ তাকে আমাদের কাছে হস্তান্তর করেছে। আইনি প্রক্রিয়া শেষে তাকে বৃহস্পতিবার আদালতে পাঠানো হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ
Design & Developed BY ThemesBazar.Com