২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ৮ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৪ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

হেফজখানায় বেত্রাঘাতে ছাত্র অজ্ঞান, শিক্ষকের কারাদণ্ড

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : দেশের মাদ্রাসাগুলোতে ছাত্রদেরকে বেধড়ক মারার ঘটনা সম্প্রতি খুব বেশি পরিমাণে উঠে আসছে। এবার হেফজখানায় পড়া না পারায় এক ছাত্রকে বেধড়ক পেটান শিক্ষক। এতে ওই ছাত্র জ্ঞান হারিয়ে ফেললে ঘটনাটি জানাজানি হয়। পরে ইউএনওর কাছে অভিযোগের প্রেক্ষিতে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ওই শিক্ষককে সাতদিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (১০ মার্চ) সকালে ময়মনসিংহের নান্দাইলে এ ঘটনা ঘটে।

আহত ছাত্র নান্দাইল পৌর সদরের মো. জুয়েল মিয়ার ছেলে সাব্বির হোসেন (১১)। সে সাব্বির স্থানীয় আমেনা মফিজ উদ্দিন নুরুল কোরআন নূরানী ও হাফিজিয়া মাদরাসার নূরানী বিভাগের শিক্ষার্থী।

আরো পড়ুন : দিন দিন কমছে ভালো মাদ্রাসার সংখ্যা : আল্লামা মাসঊদ

সাব্বিরের বাবা জুয়েল মিয়া জানান, পড়া ভুল হওয়ার কারণে শিক্ষক শফিকুল ইসলাম আমার ছেলেকে মারধর করেন। তখন সে অচেতন হয়ে পড়লে অন্য শিক্ষার্থীর মাধ্যমে খবর পাই। মাদরাসায় গিয়ে দেখি- ছেলের শরীরের বিভিন্ন জায়গায় বেত্রাঘাতের অনেক লালচে দাগ হয়েছে। সেই সঙ্গে সারা শরীর গরম হয়ে গেছে। এ অবস্থায় ছেলেটি ভয়ে কাঁপছিল। পরে ঘটনাটি ইউএনও স্যারকে অবহিত করি।

নান্দাইল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. এরশাদ জানান, শাসনের নামে এভাবে কোনো শিক্ষক শারীরিক নির্যাতন করতে পারেন না। অভিযুক্ত শিক্ষককে ভ্রাম্যমাণ আদালতে হাজির করে তাঁর স্বীকারোক্তি মতে সাতদিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

/এএ

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২১ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com