অস্ত্র মামলায় প্রেসিডেন্ট বাইডেনের ছেলে দোষী সাব্যস্ত

অস্ত্র মামলায় প্রেসিডেন্ট বাইডেনের ছেলে দোষী সাব্যস্ত

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের ছেলে হান্টার বাইডেনকে ২০১৮ সালে একটি রিভলবার কেনার সাথে সম্পর্কিত তিনটি গুরুতর অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। বাদি পক্ষের আইনজীবিদের যুক্তি ছিল, প্রেসিডেন্টের পুত্র বাধ্যতামূলক বন্দুক-ক্রয়ের বাধ্যতামূলক ফর্মে মিথ্যা বলেছিলেন যে তিনি অবৈধভাবে মাদক ব্যবহার করেননি বা তাতে আসক্ত নন।

জুরিরা হান্টার বাইডেনকে ফেডারেল লাইসেন্সপ্রাপ্ত বন্দুক ব্যবসায়ীর কাছে মিথ্যা বলার জন্য দোষী সাব্যস্ত করেছেন। হান্টার বাইডেন আবেদনে মিথ্যা দাবি করেছিলেন যে, তিনি মাদক ব্যবহারকারী নন। তিনি ১১ দিন অবৈধভাবে নিজের কাছে বন্দুকটি রেখেছিলেন।

বিচারক মেরিয়েলেন নোরেইকা তাকে দোষী সাব্যস্ত করায় তার ২৫ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে। তবে প্রথমবার যারা এই অপরাধ করে তাদের সর্বোচ্চ কারাদণ্ডের কাছাকাছিও কোনো কারাদণ্ড দেয়া হয় না।বিচারক তাকে কারাদণ্ড দেবেন কি না তা স্পষ্ট নয়।

হান্টার বাইডেন এবং ট্রাম্প উভয়েই যুক্তি দিয়েছেন, তারা এই সময়ের রাজনীতির শিকার। তবে ট্রাম্প যখন এই রায়কে ‘কারচুপি’ বলে মিথ্যা দাবি করে চলেছেন, তখন জো বাইডেন বলেছেন, তিনি রায়ের ফলাফল মেনে নেবেন এবং তার ছেলেকে ক্ষমা করা হোক- এমনটা তিনি চাইবেন না।

জুরিদের রায় ঘোষণার পর প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, তিনি মামলার ফলাফল মেনে নিয়েছেন এবং তিনি ‘হান্টারের আপিল বিবেচনা সত্বেও বিচারিক প্রক্রিয়ার প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকবেন।’

প্রেসিডেন্ট এক বিবৃতিতে বলেন, ‘জিল এবং আমি সব সময় হান্টার এবং আমাদের পরিবারের বাকি সদস্যদের জন্য আমাদের ভালোবাসা এবং সমর্থন নিয়ে পাশে থাকবো। কোনো কিছুই এটি পরিবর্তন করতে পারবে না।’

হান্টার বাইডেনের আইনি জটিলতা এখনো শেষ হয়নি। ১৪ লাখ ডলার কর পরিশোধে ব্যর্থ হওয়ার অভিযোগে সেপ্টেম্বরে ক্যালিফোর্নিয়ায় তার বিচার হবে এবং কংগ্রেসের রিপাবলিকানরা ইঙ্গিত দিয়েছে, তারা প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে অভিশংসন প্রচেষ্টায় বিরামহীনভাবে কাজ করবেন। প্রেসিডেন্টের পুত্রের তদন্তকারীরা প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে কোনো অন্যায়ের অভিযোগ আনেনি বা তার বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ আনেনি।
সূত্র : ভয়েস অব আমেরিকা

Related Articles