আজ থেকে শুরু অমর একুশে বইমেলা

আজ থেকে শুরু অমর একুশে বইমেলা

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : বাংলা একাডেমি আয়োজিত অমর একুশে বইমেলা শুরু আজ বুধবার। গত দুই বছর বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারণে বইমেলা ছিল এলোমেলো। মহামারি শেষে এবার যথাসময়ে ১ ফেব্রুয়ারি শুরু হচ্ছে বইমেলা। আজ বিকেল ৩টায় সশরীরে মেলার উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এবার বইমেলা অনুষ্ঠিত হবে বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণ ও সোহরাওয়ার্দী উদ্যান মিলে প্রায় সাড়ে ১১ লাখ বর্গফুট জায়গায়। একাডেমি প্রাঙ্গণে ১১২টি প্রতিষ্ঠানকে ১৬৫টি এবং সোহরাওয়ার্দী উদ্যান অংশে ৪৮৯টি প্রতিষ্ঠানকে ৭৩৬টি ইউনিটসহ মোট ৬০১টি প্রতিষ্ঠানকে ৯০১টি ইউনিট বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। মেলায় ৩৮টি প্যাভিলিয়নে থাকবে বড় প্রকাশনীগুলো। এবার বইমেলার মূল প্রতিপাদ্য—‘পড়ো বই গড়ো দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ।’

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বাংলা একাডেমি প্রকাশিত সাতটি নতুন বইয়ের গ্রন্থ উন্মোচন করবেন এবং বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার—২০২২ প্রদান করবেন। এবার এ পুরস্কার পাচ্ছেন ১৫ জন গুণী। উদ্বোধন শেষে প্রধানমন্ত্রী বইমেলা ঘুরে দেখবেন। এরপর প্রবেশ উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে জনসাধারণের জন্য।

  • বইমেলার বিস্তারিত তথ্য

বাংলা একাডেমির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, মেট্রো রেল স্টেশনের অবস্থানগত কারণে গতবারের মূল প্রবেশপথ এবার একটু সরিয়ে বাংলা একাডেমির মূল প্রবেশপথের উল্টো দিকে করা হয়েছে। এবার গতবারের প্রবেশপথটি বাইর পথ হিসেবে ব্যবহৃত হবে। এ ছাড়া টিএসসি, দোয়েল চত্বর এবং ইঞ্জিনিয়ারিং ইনস্টিটিউশন অংশে আরো তিনটি প্রবেশ ও বাইর পথ থাকবে।

মেলায় শিশু চত্বরের পরিধি কম হওয়ায় এবার এই চত্বরটি মন্দিরগেটে প্রবেশের ডান দিকে বড় পরিসরে রাখা হয়েছে। যেন শিশুরা অবাধে বিচরণ করতে পারে এবং তাদের কাঙ্ক্ষিত বই সহজে সংগ্রহ করতে পারে।

লিটলম্যাগাজিন চত্বর স্থানান্তরিত হয়েছে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের গ্রন্থ উন্মোচন অংশের কাছাকাছি। বইমেলায় বাংলা একাডেমি এবং অংশগ্রহণকারী অন্য প্রতিষ্ঠান ২৫ শতাংশ কমিশনে বই বিক্রি করবে। প্রতিদিন বিকেল ৪টায় বইমেলার মূল মঞ্চে সেমিনার এবং সন্ধ্যায় থাকবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এবারের গ্রন্থমেলায় বাংলা একাডেমি প্রকাশ করছে নতুন ও পুনর্মুদ্রিত ১৩৬টি বই।

  • বইমেলার সময়সূচি

বইমেলা ১ ফেব্রুয়ারি থেকে ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত (ছুটির দিন ব্যতীত) প্রতিদিন বিকেল ৩টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। রাত সাড়ে ৮টার পর নতুন করে কেউ মেলা প্রাঙ্গণে প্রবেশ করতে পারবে না। ছুটির দিন বইমেলা শুরু হবে সকাল ১১টায়। ২১শে ফেব্রুয়ারি মহান শহীদ দিবস এবং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে মেলা শুরু হবে সকাল ৮টায় এবং চলবে যথারীতি রাত ৯টা পর্যন্ত।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *