২২শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ২০শে শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরি

করোনা; টিকা নিলেও থামছে না সংক্রমণ

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : বিশ্বজুড়ে মহামারী রূপ ধারন করে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে যুজতে ভ্যাকসিন আবিষ্কার হলেও ভাইরাস সংক্রমণের ভয় কিন্তু থেকেই যাচ্ছে। ভ্যাকিন নেওয়ার পরেও করোনার আক্রান্ত খবর পাওয়া যাচ্ছে সারাবিশ্বে।

যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস প্রদেশের ডেমোক্র্যাটিক পার্টির নেতা স্টিফেন লিঞ্চ করোনা প্রতিরোধে ফাইজারের দ্বিতীয় ডোজের টিকা দেওয়ার পরও করোনায় আক্রান্ত হন। অন্যদিকে নিউইয়র্কের আইনা কলেজের পুরুষ বাস্কেটবল দলের কোচ রিক পিটিনোওর করোনার প্রথম ডোজ টিকা দেওয়ার পর করোনা শনাক্ত হয়।

শুধু এই দুজনই নন, বিশ্বের অনেক দেশেই টিকা নেওয়ার পরও কেউ কেউ করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনার টিকা সম্পূর্ণ বা তাৎক্ষণিক সুরক্ষা দেয় না। এর অর্থ হচ্ছে, টিকা দেওয়ার পরও কারো কারো শরীরে করোনার সংক্রমণ হতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্রের ‘সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল এন্ড প্রিভেনশন’ এর তথ্য অনুয়ায়ী, টিকা নেওয়ার পর এর কার্যকারিতা শুরু হতে কয়েক দিন থেকে কয়েক সপ্তাহ পর্যন্ত সময় লাগতে পারে। এ কারণে টিকা দেওয়ার পর কেউ কেউ করোনায় আক্রান্ত হতে পারেন।

যুক্তরাষ্ট্রের ক্লিভল্যান্ডের ট্র্যাভেল মেডিসিন ও গ্লোবাল হেলথের ইউনিভার্সিটি হাসপাতাল রো গ্রিন সেন্টারের পরিচালক ড. রবার্ট সালাতা বলেন, টিকা প্রয়োগের পর শরীরে প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি হতে কিছুটা সময় নেয়।

মডার্নার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা স্টিফেন ব্যানসেল সোমবার জানিয়েছেন, টিকার প্রথম ডোজ দেওয়ার পর কিছুটা সুরক্ষা দিতে পারে। তবে এই মুহুর্তে এটি প্রমাণ করার জন্য তাদের কাছে কোনো তথ্য নেই।

অন্যদিকে ফাইজারের টিকার প্রধান তদন্তকারী কর্মকর্তা সালাতা জানান, টিকার প্রথম ডোজ দেওয়ার ১৪ দিন পর এটি শতকরা ৫২ ভাগ রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করতে পারে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, যেহেতু কোনো টিকাই শতকরা ১০০ ভাগ কার্যকর নয় এ কারণে টিকা দেওয়ার পরও কেউ কেউ করোনা আক্রান্ত হতে পারেন। গবেষণায় দেখা গেছে, ফাইজারের দুই ডোজ টিকা প্রয়োগ করা হলে করোনা প্রতিরোধে শতকরা ৯৫ ভাগ সুরক্ষা দেবে। অন্যদিকে সম পরিমাণে মর্ডানার টিকা দেওয়া হলে শতকরা ৯৪ ভাগ সুরক্ষা দেবে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, আগেই করোনা সংক্রমিত হয়ে থাকলে টিকা দেওয়ার পরও কেউ কেউ করোনায় আক্রান্ত হতে পারেন। সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের ‘সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন’ থেকে প্রকাশিত এক গবেষণাপত্র থেকে জানা গেছে, ৪০৮১ জন স্বাস্থ্যকর্মীকে করোনার প্রথম ডোজ দেওয়ার পর ২২ জন করোনায় আক্রান্ত হন।

এ প্রসঙ্গে ইসরাইলের শেবা মেডিকেল সেন্টারের লেখক, গবেষক ডা. আইয়াল লেশেম বলেছেন, এটা স্পষ্ট যে, প্রথম ডোজ পাওয়ার আগে থেকে কিছু কর্মী করোনায় আক্রান্ত ছিলেন।

টিকাদান রোগ প্রতিরোধ করে, তবে এটি এখনও স্পষ্ট নয় যে এই টিকা সব সংক্রমণ প্রতিরোধ করতে পার কিনা। সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ এবং ভ্যান্ডারবিল্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বাস্থ্য নীতি বিভাগের প্রতিরোধক ওষুধের অধ্যাপক ড. উইলিয়াম সাফলার বলেছেন, করোনার টিকা ভাইরাস প্রতিরোধে সহায়তা করবে। তবে টিকা দেওয়ার পর করোনার কোনো ধরনের লক্ষণ আর দেখা যাবে কিনা সে বিষয়ে এখনো গবেষণা হচ্ছে।

যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মাকোলজি এবং অণুবিজ্ঞান বিভাগের পরিচালক নমান্দে বাম্পাস বলেছেন, যতদূর আমরা দেখেছি, করোনার টিকা রোগ প্রতিরোধ করে। এমনকী এই ভাইরাসের তীব্রতা রোধে গেম চেঞ্জার হিসেবে কাজ করে। তিনি আরো বলেন, টিকা দিলেই হয়তো ভাইরাস পুরোপুরি নির্মূল হবে না। তবে টিকা না দেওয়ার চেয়ে দেওয়া হলে দেহে সংক্রমণের তীব্রতা কমবে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনার টিকা মানুষজনকে শুধুমাত্র অসুস্থ হওয়া প্রতিরোধ করবে না পুরোপুরি করোনা সংক্রমণ রোধ করতে পারবে তা নিয়ে এখনও গবেষণা অব্যাহত আছে। এছাড়া টিকা নিলেও একজন থেকে আরেকজনের মধ্যে করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে কিনা সে বিষয়েও এখনো সেরকম তথ্য পাওয়া যায়নি।

/এএ

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com