গাজায় ইসরায়েলকে আরও সতর্ক হতে বললেন বাইডেন

গাজায় ইসরায়েলকে আরও সতর্ক হতে বললেন বাইডেন

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম: ফিলিস্তিনের গাজা ভূখণ্ডে অবিরাম হামলা চালিয়ে যাচ্ছে ইসরায়েল। টানা দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে চালানো এই হামলায় এখন পর্যন্ত নিহত হয়েছেন প্রায় ১৯ হাজার ফিলিস্তিনি। বর্বর এই আগ্রাসনের জেরে ইসরায়েলের বিরুদ্ধে বিশ্বজুড়ে বাড়ছে ক্ষোভ।

 

এই পরিস্থিতিতে বেসামরিক মানুষের জীবন বাঁচাতে ইসরায়েলকে ‘আরও সতর্ক’ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। শুক্রবার (১৫ ডিসেম্বর) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে বার্তাসংস্থা আনাদোলু।

 

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গাজার বেসামরিক নাগরিকদের সুরক্ষার জন্য ইসরায়েলকে আরও বেশি যত্নবান হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ফিলিস্তিনি এই ভূখণ্ডে ইসরায়েলি বাহিনীর স্থল যুদ্ধের মাত্রা কমিয়ে আনতে চায় যুক্তরাষ্ট্র, এমন রিপোর্টের মধ্যেই বৃহস্পতিবার এই মন্তব্য করলেন তিনি।

 

গাজায় ইসরায়েলের যুদ্ধ বন্ধ হোক এমনটা চান কিনা; এমন প্রশ্নের জবাবে বাইডেন বলেন, ‘আমি চাই কীভাবে বেসামরিক মানুষের জীবন বাঁচাতে পারে সেদিকে তারা মনোযোগী হোক। হামাসকে নির্মূলের কাজ বন্ধ করা যাবে না, তবে আরও সতর্ক হতে হবে।’

 

এদিকে গাজায় ইসরায়েলের চলমান যুদ্ধের টাইমলাইন সম্পর্কে বৃহস্পতিবার হোয়াইট হাউস মিশ্র বার্তা পাঠিয়েছে। ইসরায়েলের এক জ্যেষ্ঠ মন্ত্রী বলেন, যুদ্ধ আরও কয়েক মাস স্থায়ী হতে পারে।

 

হোয়াইট হাউসে ন্যাশনাল সিকিউরিটি কাউন্সিলের মুখপাত্র জন কিরবি সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা ইসরায়েলিদের নির্দেশ দিচ্ছি না যে, এই যুদ্ধ কতক্ষণ চলবে। এই হুমকি দূর করতে যতক্ষণ তারা মনে করে তাদের ততক্ষণ সময় নিতে হবে।’

 

উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলে নজিরবিহীন হামলা চালায় ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস। এরপর থেকে টানা দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে গাজায় আগ্রাসন চালাচ্ছে ইসরায়েল।  ইসরায়েলি এই আগ্রাসনের নিহত হয়েছেন ১৮ হাজার ৬০০ জনেরও বেশি ফিলিস্তিনি। নিহত এসব ফিলিস্তিনিদের ৭০ শতাংশই নারী ও শিশু।

 

এই পরিস্থিতিতে গত মঙ্গলবার ১৯৩ সদস্যের জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদ যুদ্ধবিধ্বস্ত গাজায় মানবিক যুদ্ধবিরতির আহ্বান জানিয়ে একটি প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দেয়। ভোটাভুটিতে প্রস্তাবটির পক্ষে ভোট দেয় ১৫৩টি দেশ।

 

অন্যদিকে ইসরায়েল, যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রিয়া ও চেক রিপাবলিকসহ ১০টি দেশ বিপক্ষে ভোট দেয়। আর ভোটদান থেকে বিরত ছিল যুক্তরাজ্য ও জার্মানিসহ ২৩টি দেশ। যদিও সাধারণ পরিষদে পাস হওয়া এই রেজোলিউশনটি মানা বাধ্যতামূলক নয়, তারপরও এটি বৈশ্বিক মতামতের সূচক হিসাবে কাজ করে থাকে।

এছাড়া মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ইসরায়েলের সমালোচনা করে বলেছেন, গাজায় নির্বিচারে বোমাবর্ষণের কারণে ইসরায়েল বিশ্বব্যাপী সমর্থন হারাচ্ছে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *