১লা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ২১শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

ডিএনসিসি উপনির্বাচন : মেয়র পদে ৫ জনের মনোনয়ন বৈধ

পাথেয় রিপোর্ট : ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচনে পাঁচ প্রার্থীকে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। ঋণখেলাপির অভিযোগে জাতীয় পার্টি-জাপা মনোনীত মেয়র প্রার্থী ব্যান্ডশিল্পী শাফিন আহমদের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়ে গেছে।

যারা বরাদ্দ পেয়েছেন তারা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত আতিকুল ইসলাম (নৌকা), জাতীয় পার্টির শাফিন আহমেদ (লাঙল), ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) মো. আনিসুর রহমান দেওয়ান (আম), প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক পার্টির (পিডিপি) শাহীন খান (বাঘ) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ আবদুর রহিম (টেবিল ঘড়ি) প্রতীক পেয়েছেন।

রোববার সকালে নির্বাচনে কমিশনের তাদেরকে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়।

এর আগে শনিবার ছিল প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন। এদিন মেয়র পদে উপনির্বাচন থেকে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করেন জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলনের (এনডিএম) প্রার্থী ববি হাজ্জাজ।

এছাড়াও ঋণখেলাপি হওয়ায় বাছাইয়ে ছয়জন কাউন্সিলর প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়। তারা হলেন ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের তানজিনা হক, ৩৭ নম্বর ওয়ার্ডের সাইফুল্লাহ কাদির, ৫১ নম্বর ওয়ার্ডের শওকত চৌধুরী এবং ৫২ নম্বর ওয়ার্ডের রাইসুল ইসলাম, ফরিদ আহমেদ ও মির্জা মো. ইলিয়াস।

এছাড়া ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটির সম্প্রসারিত ওয়ার্ডগুলোতে নির্বাচন থেকে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন মোট ৬৮ জন প্রার্থী।

ঢাকা উত্তর সিটির ২০টি সাধারণ ওয়ার্ডে ৪০ জন ও সংরক্ষিত ৬টি ওয়ার্ডে ১ জন এবং ঢাকা দক্ষিণ সিটির ১৮টি ওয়ার্ডে ২৬ জন ও সংরক্ষিত ৬টি ওয়ার্ডে ১ জন প্রার্থিতা প্রত্যাহার করেছেন।

ঢাকা উত্তর সিটির ৯ নম্বর ওয়ার্ডের উপনির্বাচনে একজন প্রার্থী প্রত্যাহার করায় অপর প্রার্থী মুজিব সরোয়ার মাসুম বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।

আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ঢকার দুই সিটিতে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের মধ্যে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। দুই রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় এসব তথ্য জানিয়েছে।

জানা গেছে, আনিসুল হক মারা যাওয়ায় ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র পদে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এ উপনির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রাথী মো. আতিকুল ইসলামসহ মোট ৬ জন।

যাচাই-বাছাইয়ে জাতীয় পার্টির মোহাম্মদ শাফিন আহমেদের মনোনয়নপত্র বাতিল হলেও পরে তিনি আপিলে প্রার্থিতা ফিরে পান। তবে এ নির্বাচন থেকে ববি হাজ্জাজ তার প্রার্থিতা প্রত্যাহার করায় আতিকুল ইসলামকে অপর চার প্রার্থীর সঙ্গে ভোটের মাঠে লড়তে হচ্ছে।

প্রার্থিতা বাতিলের প্রতিক্রিয়ায় শাফিন সাংবাদিকদের বলেন, এটা ইসির অযৌক্তিক সিদ্ধান্ত। আমার সিআইবি রিপোর্ট ক্লিয়ার। আমি কোথাও খেলাপি নই। তারপরও কীভাবে আমাকে বাদ দেয়া হল? আমি অবশ্যই এর বিরুদ্ধে আপিল করব।

ডিএনসিসি নির্বাচনে বৈধ প্রার্থীরা হলেন, আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আতিকুল ইসলাম, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) আনিসুর রহমান দেওয়ান, জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলনের (এনডিএম) ববি হাজ্জাজ, প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দলের (পিডিপি) শাহীন খান ও স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুর রহিম।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২১ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com