২৬শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ১২ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ২৫শে জিলকদ, ১৪৪৩ হিজরি

তাওয়াফ ও সায়ীতে সন্দেহ হলে কী করবেন?

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : পবিত্র কাবা শরিফ ও সাফা-মারওয়া পাহাড়ে ৭ বার প্রদক্ষিণ করতে হয়। যদি কারো এ চক্কর বা প্রদক্ষিণ করার সঠিক হিসাব ভুলে যায় তবে তার করণীয় কী? তিনি কি প্রথম থেকে তাওয়াফ ও সায়ী করবেন নাকি যে কোনো একটিকে সঠিক বলে ধরে নিয়ে তাওয়াফ ও সায়ী শেষ করবেন। এ সম্পর্কে সঠিক সমাধানি কী?

সামর্থ্যবান ও শারীরিক সক্ষম ব্যক্তিদের জন্য ফরজ ইবাদত হজ। এ ইবাদতে কাবা শরিফ ৭ চক্করে এক তাওয়াফ এবং সাফা ও মারওয়া পাহাড়ে ৭ চক্করের মাধ্যমে এক সায়ী সম্পন্ন করা হজ ও ওমরার অন্যতম রোকন। যা না করলে হজ ও ওমরা আদায় হবে না। কিন্তু কোনো ব্যক্তি যদি তাওয়াফ ও সায়ীতে কত চক্কর দিল, আর এ ব্যাপারে সন্দিহান হয়ে পড়ে; তখন করণীয় কী?

‘তাওয়াফ ও সায়ী’র ব্যাপারে যদি সন্দেহের উদ্রেক হয়। যেমন : ৩ চক্কর নাকি ৪ চক্কর পূর্ণ হলো তা মনে না থাকে; এ সম্পর্কে সন্দেহ দেখা দেয়। এমন অবস্থায় কম সংখ্যার চক্কর অর্থাৎ ৩ চক্করকে নিশ্চিত ধরে অবশিষ্ট ৪ চক্কর সম্পন্ন করা।’

অর্থাৎ কেউ তাওয়াফ ও সায়ী করার সময় চক্কর কতটি সম্পন্ন করল তা সুস্পষ্টভাবে স্মরণ করতে পারছে না। সন্দেহ যদি ৩/৪ এর মধ্যে হয় তবে ৩ চক্করকে মূল ধরে বাকি চক্কর সম্পন্ন করা। সন্দেহ যদি ৪/৫ চক্কর নিয়ে হয় তবে ৪ চক্করকে মূল ধরে বাকি চক্কর সম্পন্ন করার কথা এসেছে। এভাবেই ৭ চক্করে তাওয়াফ ও সায়ী সম্পন্ন করতে হবে।

  • মনে রাখতে হবে

তাওয়াফ শেষ হলে ইজতিবা থেকে বের হয়ে উভয় কাঁধ চাদর দ্বারা ঢাকতে হবে। তাওয়াফের পর দুই রাকাত নামাজ আদায় করার আগেই তা করতে হবে। এরপর তাওয়াফ পরবর্তী দুই রাকাত নামাজ আদায় করতে হয়।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে হজ ও ওমরায় তাওয়াফ ও সায়ীর সংখ্যা ভুলে গেলে কম সংখ্যাকে মূল ধরে তাওয়াফ ও সায়ী সম্পন্ন করার তাওফিক দান করুন। হজ ও ওমরায় যাবতীয় ভুল থেকে মুক্ত থাকার তাওফিক দান করুন। আমিন।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com