২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ , ১৩ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ৪ঠা রজব, ১৪৪৪ হিজরি

নতুন প্রজন্মের জন্য সিগারেট নিষিদ্ধ করলো নিউজিল্যান্ড

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : আগামী বছর থেকে পাকাপাকিভাবে তামাক নিষিদ্ধ করতে চলেছে নিউজিল্যান্ড। দেশটির নতুন আইন অনুসারে, ২০০৯ সালের ১ জানুয়ারির পর সেখানে জন্ম নেয়া কোনো নাগরিকের কাছে কেউ তামাক বা তামাকজাত পণ্য বিক্রি করতে পারবে না। দেশটির পরবর্তী প্রজন্মের জন্যও এ আইন কার্যকর থাকবে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি’র প্রতিবেদন বলা হয়েছে, স্থানীয় সময় মঙ্গলবার (১৩ ডিসেম্বর) দেশটির পার্লামেন্টে আইনটি পাস হয়। ২০০৯ সালের ১ জানুয়ারির পর জন্ম নেয়া কারো কাছে তামাক বা তামাকজাত পণ্য বিক্রি করলে তা শাস্তিযোগ্য অপরাধ বলে বিবেচিত হবে এবং তাকে ৯৬ হাজার ডলার অর্থদণ্ড দিতে হবে।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, এর ফলে প্রতি বছর দেশটিতে তামাক কিনতে সক্ষম লোকের সংখ্যা কমে আসবে।

নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী আয়েশা ভেরাল বলেন, এটি “ধূমপানমুক্ত ভবিষ্যতের দিকে” একটি পদক্ষেপ।

তিনি আরও বলেন, আইনটি বাস্তবায়িত হলে হাজার হাজার মানুষ দীর্ঘজীবী হবে এবং স্বাস্থ্যকর জীবন যাপন করবে। ধূমপানের কারণে সৃষ্ট রোগ-বালাই যেমন, বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সার, হার্ট অ্যাটাক, স্ট্রোক, অঙ্গচ্ছেদের চিকিৎসার প্রয়োজন না হওয়া থেকে দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থায় অন্তত ৫০০ কোটি ডলার সাশ্রয় হবে।

এরইমধ্যে নিউজিল্যান্ডে ধূমপানের হার ইতিহাসের সর্বনিম্ন পর্যায়ে রয়েছে। নভেম্বরে প্রকাশিত সরকারি পরিসংখ্যান অনুযায়ী, প্রাপ্তবয়স্কদের মাত্র ৮ শতাংশ দৈনিক ধূমপান করে, যা গত বছরের ৯ দশমিক ৪ শতাংশ থেকে কমে এসেছে।

সংশ্লিষ্টদের প্রত্যাশা, এই স্মোক ফ্রি এনভায়রনমেন্ট বিলের কারণে ২০২৫ সালের মধ্যে এই সংখ্যাটি ৫ শতাংশে নেমে আসবে।

বিলটি এমনভাবে করা হয়েছে যাতে দেশব্যাপী তামাকজাত পণ্যের বিক্রি কমে আসে।

তবে নতুন আইনটি ‘ভ্যাপ’ পণ্য তথা ইলেকট্রনিক বা ই-সিগারেট নিষিদ্ধ করে না, যা সিগারেটের চেয়ে তরুণ প্রজন্মের মধ্যে অনেক বেশি জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com