১৭ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ৩রা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ১৫ই শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরি

মুসলিমবিদ্বেষী বক্তব্যের জেরে যাতি নরসিংহানন্দ গ্রেপ্তার

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : গত মাসে উত্তর ভারতের হরিদ্বারে যে ধর্মীয় অনুষ্ঠানে মুসলিমদের হত্যা করার আহ্বান জানানো হয়েছিল, তার অন্যতম আয়োজক যাতি নরসিংহানন্দকে শনিবার গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ভারতের সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশনার পর এ ঘটনায় আটক দ্বিতীয় ব্যক্তি তিনি।

বিদ্বেষমূলক ভাষণের ওই ঘটনায় প্রথমে আটক হন ধর্মান্তরিত হওয়া জিতেন্দ্র নারায়ণ সিং ত্যাগী (আগের নাম ওয়াসিম রিজভী)। হরিদ্বারে অনুষ্ঠিত ‘ধর্ম সংসদে’ (ধর্মসভা) তারা ধর্মীয় উগ্রবাদী বক্তব্য দিয়েছিলেন।

গত দুই সপ্তাহে গেরুয়াধারী নরসিংহানন্দ তার সুর পাল্টেছেন। প্রথমে বাহাদুরি করে তিনি বলেন, এক পুলিশ কর্মকর্তা তাদের পাশে থাকবেন। জিতেন্দ্র নারায়ণ গ্রেপ্তার হওয়ার পরেই আবার পুলিশকে গালমন্দ করে বলেন, ‘তোদের সবাই মরবি।’

মুসলিমদের বিরুদ্ধে অস্ত্র ধরা তথা হত্যাযজ্ঞ চালানোর আহ্বানের অভিযোগে দায়ের করা এজাহারে দশজনেরও বেশি অভিযুক্তের অন্যতম নরসিংহানন্দ। চাপের মুখে পুলিশ সাধ্বী অন্নপূর্ণা নামের আরেক নারী ধর্মীয় ব্যক্তিত্বের বিষয়েও খোঁজ নিচ্ছে।

রাজনৈতিক মহল ও জনমনে প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হলেও বিদ্বেষমূলক ওই বক্তব্যের প্রায় এক মাস পর সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশনার পরেই ওই ধর্মীয় নেতাদের গ্রেপ্তার করা হয়। ভারতের সুপ্রিম কোর্ট গত বুধবার উত্তরাখণ্ড সরকারকে এ বিষয়ে গৃহীত ব্যবস্থা সম্পর্কে ১০ দিনের মধ্যে জানানোর নির্দেশ দিয়েছিলেন।

সূত্র : এনডিটিভি

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com