১৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ৫ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৫ই জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

রাষ্ট্র মেরামতের জন্য দেশে আরেকটি যুদ্ধ দরকার : গয়েশ্বর চন্দ্র রায়

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : ‘হাসিনার পতন ছাড়া এদেশের মানুষ মুক্তি পাবে না। তাকে ক্ষমতা থেকে নামিয়ে জেলে পাঠিয়ে দিতে হবে। বর্তমান সরকারের আমলে ১০ লাখ কোটি টাকা এদেশ থেকে পাচার হয়ে গেছে। এই টাকা জনগণের টাকা। এই দেশে প্রথম বাজেট ছিল ৭৫০ কোটি টাকা। স্বাধীনতার ৫০ বছর পর জনগণের ১০ লাখ কোটি আজ বিদেশে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। এই টাকা ফেরত আনতে হবে।’

বুধবার (১২ জানুয়ারি) বিকালে খুলনার ডুমুরিয়ায় গুটুদিয়া ফুটবল মাঠে গণসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় এসব কথা বলেন।

বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবি এবং বিদেশে সুচিকিৎসার দাবিতে এ সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন জেলা বিএনপির আহবায়ক আমীর এজাজ খান।

বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মশিউর রহমান, ভারপ্রাপ্ত সাংগঠনিক সম্পাদক (খুলনা বিভাগ) অনিন্দ্য ইসলাম অমিত, তথ্য বিষয়ক সম্পাদক আজিজুল বারী হেলাল, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক (খুলনা বিভাগ) জয়ন্ত কুমার কুণ্ডু, সহ-প্রচার সম্পাদক কৃষিবিদ শামীমুর রহমান শামীম প্রমুখ। প্রধান বক্তা ছিলেন নগর বিএনপি আহবায়ক অ্যাডভোকেট শফিকুল আলম মনা।

অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন জেলার যুগ্ম আহবায়ক আবু হোসেন বাবু ও সদস্য সচিব মনিরুল হাসান বাপ্পী। বক্তৃতা করেন নগরের যুগ্ম আহবায়ক তরিকুল ইসলাম জহির, সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিনসহ বিএনপির কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে গয়েশ্বর চন্দ্র রায় আরও বলেন, দুর্যোগের সময় সুন্দরবন এ অঞ্চলের মানুষকে রক্ষা করে। বর্তমান সরকার সুন্দরবন ধ্বংস করার জন্য রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র করেছে। যার অনুমতি ভারতে সরকার দেয়নি। দেশকে ধ্বংস করার জন্য এবং পরিবেশ বিপর্যয়ের জন্য রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে। পুলিশকে বলা হয় চোর ধরতে। সেখানে পুলিশ নিজেই রাতে ভোট চুরি করে। পুলিশ কোনো সরকার রক্ষা করতে পারে না।

তিনি আরও বলেন, ৭১ সালে এদেশের জনগণ যুদ্ধ করে স্বাধীনতা এনেছিল। দেশে আরেকটি যুদ্ধ দরকার। সেটা হল রাষ্ট্র মেরামতের যুদ্ধ। বিএনপি ক্ষমতার জন্য রাজনীতি করে না। আওয়ামী লীগে সকলেই প্রবাসী মুক্তিযোদ্ধা। ৭১ সালে যাদের বাবা-মায়ের বিয়ে হয়নি। তাদের সন্তানরাও এখন মুক্তিযোদ্ধা।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com