৫ই আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ২১শে শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ২৫শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

গির্জায় আগুন, শোক সন্তপ্ত ফ্রান্স

গির্জায় আগুন, শোকে সন্তপ্ত ফ্রান্স

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : গির্জার সবটায় পুড়ে ছাড়খার। এমন একটি ধর্মীয় স্থাপনা পুড়ে যাওয়ায় সাধারণ মানুষের মধ্যে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। শোকসন্তপ্ত ফ্রান্সের দুই হাত এখন ইশ্বরমুখী। তারা বেদনাক্রান্ত। ফ্রান্সের সবচেয়ে বিখ্যাত স্থাপনার একটি প্যারিসে মধ্যযুগীয় নটরডাম ক্যাথেড্রাল সোমবার আগুনে অনেকটাই ধ্বংস হয়ে গেছে। এতে করে ফ্রান্সজুড়ে শোকের ছায়া পড়েছে।

আটশো পঞ্চাশ বছরের পুরনো ভবনটি পুরোপুরি তৈরি করতে সময় লেগেছিল দুইশ বছর। ইতিহাস আগুন কেড়ে নিয়েছে। কে লাগিয়েছে আগুন, সেটি এখনো আলোচনায় নেই। তবে শুরু হয়েছে প্রার্থনা।

ফ্রান্সের নটরডেম ক্যাথেড্রালে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডকে ভয়াবহ ‘ট্র্যাজেডি’ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে।

এ ঘটনায় দেশটির অনেককে প্রকাশ্যে কাঁদতে দেখা যায়। এছাড়া কেউবা প্রার্থনা করছিলেন এবং রাজধানীর অনেক গির্জায় বেল বাজাতে শোনা যায়।

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রো ঘটনাস্থলে পৌঁছে সকল ক্যাথলিক এবং ফরাসি নাগরিকের জন্য তার সমবেদনার কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘আমাদের এই অংশটি পুড়তে দেখে আমার দেশের আর সবার মত আমিও আজকের রাতে অত্যন্ত ব্যথিত।’
ক্লায়ার (১৫) নামের একজন আল-জাজিরাকে কাঁদতে কাঁদতে বলেন, নটরডাম ক্যাথেড্রাল প্যারিসের হৃদয়। এবং অগ্নিকাণ্ডের খবর শোনার সঙ্গে সঙ্গেই আমি এখানে আসি, এসে দেখলাম আগুনে তা অদৃশ্য হয়ে গেল।

তিমুথি মেউরেট নামের আরেক জন প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, এমন ঘটনায় চারিদিকে শোকের মাতম চলছে। চারিদিক এখন চুপচাপ আর অনেকের চোখে পানি ঝরছে।

এখন আর তেমন কিছুই অবশিষ্ট নেই, মেরি মাহিউ নামে আরেক জন বলেন।

নটরডাম ক্যাথেড্রাল অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তৎক্ষণাৎ বিশ্বনেতারা প্রতিক্রিয়া জানান। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কিভাবে আগুন নেভানো যেতে পারে তার পরামর্শ দেন।

জার্মান চ্যাঞ্চেলর এঙ্গেলা মার্কেল ও ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে ফ্রান্সের জনগণের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।

তথ্য সূত্র: বিবিসি, রয়টার্স, আল-জাজিরা।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২১ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com