২৮শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ১৪ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ২৪শে জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

দেশের কোথাও কোথাও বৃষ্টি হতে পারে

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : পৌষের শেষেও শীতের প্রকোপ তেমন একটা দেখা যায়নি। দেশের কোথাও কোথাও মৃদু শৈত্যপ্রবাহ হলেও রাজধানী ঢাকায় যেন শীতের দেখা নেই। তবে মঙ্গলবার রাজধানীসহ দেশের বেশ কিছু এলাকায় বৃষ্টি হয়েছে। বুধবার রাজধানীসহ দেশের কোথাও কোথাও বৃষ্টি হতে পারে। বৃষ্টির পরে দিন ও রাতের তাপমাত্রা কমে জেঁকে বসতে পারে শীত।

বুধবার (১২ জানুয়ারি) সকাল ৬টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকা, ময়মনসিংহ, সিলেটে, রাজশাহী, রংপুর ও খুলনা- এই ৬ বিভাগে বৃষ্টি হয়েছে। আজও দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বৃষ্টি অব্যাহত থাকতে পারে বলেও পূর্বাভাসে জানিয়েছে আবহাওয়া বিভাগ।

তবে তাপমাত্রা অনেকটাই বেড়ে গেছে। কমে গেছে শীতের অনুভূতি। এখন তা ধীরে ধীরে কমতে পারে।

বুধবার সকালে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস ছিল ফেনীতে। মঙ্গলবার সকালে দেশের সর্বনিম্ন তাপামাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় ১১ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। একদিনের ব্যবধানে ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৭ দশমিক ৩ ডিগ্রি থেকে বেড়ে হয়েছে ১৮ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

এ সময়ে সবচেয়ে বেশি বৃষ্টি হয়েছে চুয়াডাঙ্গায়, ৯ মিলিমিটার। ঢাকায় ১ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। এছাড়া টাঙ্গাইলে ৮, ফরিদপুরে ১, নিকলিতে ৪, সিলেটে ১, শ্রীমঙ্গলে ১, রাজশাহী ১, ঈশ্বরদীতে ৭, তাড়াশে ১, সাতক্ষীরায় ৮, যশোরে ২ ও কুমারখালীতে ৮ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে।

আবহাওয়াবিদ মো. আব্দুল হামিদ মিয়া জানান, বুধবার সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় রংপুর, রাজশাহী, ঢাকা, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। শেষ রাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারাদেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে।

এ সময়ে সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমতে পারে। এছাড়া দিনের তাপমাত্রা ২ থেকে ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমতে পারে বলেও জানান এই আবহাওয়াবিদ।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, পশ্চিমা লঘুচাপের বর্ধিতাংশ হিমালয়ের পাদদেশীয় পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে, যার বর্ধিতাংশ উত্তর-পূর্ব বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com