৮ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ২৩শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ১১ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

৭ মাসের সর্বনিন্মে পৌঁছে আন্তর্জাতিক বাজারে ফের বাড়ছে তেলের দাম

পাথেয় টোয়েন্টিফোর ডটকম : রাশিয়ার জ্বালানি তেলের ওপর পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞা এবং ইরানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় দেশগুলোর পরমাণু আলোচনা বাধাগ্রস্ত হওয়ায় সোমবার (১২ সেপ্টেম্বর) আন্তর্জাতিক বাজারে আবার বেড়েছে অপরিশোধিত তেলের দাম।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম রয়টার্স জানাচ্ছে, সোমবার ব্রেন্ড ক্রুড (যুক্তরাজ্যে বেঞ্চমার্ক) এর হিসাবে জ্বালানি তেলের দাম প্রতি ব্যারেলে ৯২ সেন্ট বেড়ে হয়েছে ৯৪ দশমিক ৫৬ ডলার। অন্যদিকে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের অপর বেঞ্চমার্ক ওয়েস্ট টেক্সাস ইন্টারমিডিয়েট (ডব্লিউটিআই) ক্রুডের দাম প্রতি ব্যারেলে ৭১ সেন্ট বেড়ে হয়েছে ৮৭ দশমিক ২১ ডলার।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর গত সপ্তাহে প্রতি ব্যারেল ব্রেন্ট ক্রুড তেলের দাম ৯০ ডলারের নিচে নেমে এসেছিল। গত বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববাজারে অয়েল প্রাইস ডটকমের তথ্যানুসারে, প্রতি ব্যারেল ব্রেন্ট ক্রুডের দাম ছিল ৮৮ দশমিক শূন্য ৩ ডলার। ডব্লিউটিআই ক্রুডের প্রতি ব্যারেলের দাম ছিল ৮১ ডলার।

জ্বালানি তেলের এই ক্রমনিম্নমান মূল্য রুখতে ৭ সেপ্টেম্বর জ্বালানি তেল উৎপাদন ও রপ্তানিকারী দেশসমূহের জোট ‘অর্গানাইজেশন অব পেট্রোলিয়াম এক্সপোর্টিং কান্ট্রিজ (ওপেক)’ জ্বালানি তেলের বাজার স্থিতিশীল রাখতে অপরিশোধিত তেলের উত্তোলন সীমিত করার ঘোষণা দেয়। ঐ ঘোষণার পর তেল উত্তোলন সীমিত করেছে বিভিন্ন দেশ। এর ফলে এখন বাজারে তেলের ঘটতি বেড়েছে।

ফ্রান্স, ব্রিটেন এবং জার্মানি শনিবার জানিয়েছে, পরমাণু চুক্তি পুনরুজ্জীবিত করার ক্ষেত্রে ইরানের উদ্দেশ্য সম্পর্কে তাদের “গুরুতর সন্দেহ” রয়েছে। সেক্ষেত্রে ২০১৫ সালের চুক্তি পুনরুজ্জীবিত করতে ব্যর্থ হলে ইরানের তেল বাজারে আসবে না এবং বৈশ্বিক বাজারে সরবরাহ আরও কমবে, বাড়বে তেলের দাম।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com