১৭ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ৩রা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৩ই জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

চকবাজারে নিহতদের প্রতি আল্লামা মাসঊদের শোক

চকবাজারে নিহতদের প্রতি আল্লামা মাসঊদের শোক ও ক্ষতিগ্রস্তদের সহযোগিতার আহ্বান

পাথেয় রিপোর্ট : রাজধানীর চকবাজারের ক্যামিক্যাল গোডাউনগুলো নিয়ে এখনই সিদ্ধান্ত নেওয়ার সময় এসেছে দাবি করে বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামার চেয়ারম্যান ও ঐতিহাসিক শোলাকিয়ার গ্র্যান্ড ইমাম শাইখুল হাদিস আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ বলেছেন, পুরান ঢাকার চকবাজারে রাজ্জাক ভবনে লাগা আগুনে পুড়ে নিহতদের প্রতি আমরা গভীর শোক জানাই। আল্লাহ তাআলা তাদের পরকালকে সুন্দর করে দিন।

ক্ষতিগ্রস্ত ও আহতদের পাশে দাঁড়াবার আহ্বান জানিয়ে আল্লামা মাসঊদ বলেন, মর্মান্তিক এই দুর্ঘটনায় আমরা মর্মাহত। সরকারসহ সব বিত্তবানদের উচিত তাদের পাশে দাঁড়ানো। সর্বস্ব হারানো মানুষের পাশে দাঁড়ানো বড় ইবাদত।

আবাসিক এলাকায় ক্যামিক্যাল গোডাউন নিয়ে ভাবার সময় এসেছে দাবি করে ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ বলেন, রাজধানীতে কোনটা আবাসিক এড়িয়া আর কোনটা ব্যসায়িক অঞ্চল তা বোঝা বড় দায়। সরকারের উচিত, অন্তত বিপজ্জনক ক্যামিক্যাল জাতীয় জিনিসের পৃথব অঞ্চল ঘোষণা করা। মানুষের জীবন সবার আগে।

পুরান ঢাকার চকবাজারে রাজ্জাক ভবনে লাগা আগুন লাগার বিষয়ে তদন্তের দাবি জানিয়ে মাওলানা মাসঊদ বলেন, বিচার বিভাগীয় তদন্তের মাধ্যমে আসল ঘটনা বের করে আনতে হবে। কী কারণে আগুন লেগেছে।

২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ বৃহস্পতিবার দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ এসব কথা বলেন।

আল্লামা মাসঊদ বলেন, বার বার কেন পুরান ঢাকায় আগুন লাগছে, চট্টগ্রামের বস্তিতে বড় আগুন লাগার ঘটনা ঘটছে। তা খতিয়ে দেখা উচিত। আগুনের মতো ভয়াবহ এই ঘটনার নেপথ্য নায়কদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হওয়া উচিত।

উল্লেখ্য, পুরান ঢাকার চকবাজারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নিহত প্রত্যেক শ্রমিকের পরিবারকে ১ লাখ ও আহতদের চিকিৎসার জন্য ৫০ হাজার টাকা করে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়।

বৃহস্পতিবার শ্রম মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়। এছাড়া আগুনে ব্যাপক হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন শ্রম প্রতিমন্ত্রী মন্নুজান সুফিয়ান।

প্রতিমন্ত্রী মন্নুজান সুফিয়ান নিহতদের পরিবারের সদস্যদের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা জানান এবং নিহতদের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন। তিনি এই ঘটনায় আহতদের যথাযথ চিকিৎসা দেওয়া ও নিহতদের শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদানের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন।

বুধবার রাত ১০টার পর রাজধানীর চকবাজার এলাকার নন্দকুমার দত্ত সড়কের চুরিহাট্টা মসজিদ গলির রাজ্জাক ভবনে আগুন লাগে। রাত ১টা ৫ মিনিটে আগুন নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যায়। পরে আগুন ভয়াবহ আকারে আশপাশের ৫টি বিল্ডিংয়ে ছড়িয়ে পড়ে। ফায়ার সার্ভিসের ৩২টি ইউনিট রাত ৩টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়। আগুন লেগে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৭০ জনে দাঁড়িয়েছে।

শেয়ার করুন


সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ১৯৮৬ - ২০২২ মাসিক পাথেয় (রেজিঃ ডি.এ. ৬৭৫) | patheo24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com